রোহিঙ্গা রোহিঙ্গা

প্রদীপ মার্সেল রোজারিও:

 

নিষ্পাপ নাফ নদী কার রক্তে রাঙ্গা?

এ’রা তো মানুষ-নাকি, শুধুই রোহিঙ্গা?

অসহায় নারী-শিশু লাশ হয়ে ভাসছে,

রক্তের স্বাদ পেয়ে হায়েনারা নাচছে।

নিরস্ত্রকে তাক করে কাপুরুষের অস্ত্র,

কেড়ে নিচ্ছে সহায়-সম্বল সভ্যতার বস্ত্র।

হিংসার আগুনে মানবতা জ্বলছে

শান্তি কী বনবাসে? নিপীড়ণ চলছে।

বিশ্ব-বিবেক কোথায়? কোথায় গেল অধিকার?

ভয় কিসের প্রতিবাদে-প্রতিবাদে ক্ষতি কার?

অহিংসা পরম ধর্ম- বৌদ্বদেব বলছে,

হিংসার নোংরা পায়ে অহিংসা দলছে।

কার দোষে নারী-শিশু লাশ হচ্ছে দৈনিক,

জেগে জেগে ঘুমুচ্ছেন শান্তির সৈনিক।

জীব-হত্যা মহাপাপ-থাকবে কী বাণীতে?

সম্ভ্রম হারিয়ে নারী বেঁচে আছে গ্লানিতে।

সমস্যার সমাধানে গড়ে উঠুক একতা,

দূর হউক অন্ধকার-জয়ী হউক মানবতা।

০০-০০